শনিবার   ১৮ জানুয়ারি ২০২০   মাঘ ৫ ১৪২৬   ২২ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১

৫২

আবরার হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে ছাত্রদের দাবি মেনেই এগোচ্ছে সরকার

প্রকাশিত: ১০ অক্টোবর ২০১৯  

বুয়েটের শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের বিচারে কঠোর অবস্থান নিয়েছে সরকার। এরই মধ্যে ১৩ আসামিকে গ্রেফতার করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। গ্রেফতারকৃতদের জিজ্ঞাসাবাদ করা সহ, সিসি টিভি ফুটেজের মাধ্যমে অন্যান্যদের শনাক্ত করা হচ্ছে।

এরই মধ্যে আবরার ফাহাদকে শারীরিক অত্যাচারের মাধ্যমে নৃশংস হত্যাকাণ্ডের বিচারে ১০ দফা দাবি তুলে ধরেছে সাধারণ ছাত্ররা। এদিকে সরকার ছাত্রদের দাবির সঙ্গে একাত্ম হয়ে জড়িতদের বিরুদ্ধে উপযুক্ত শাস্তির ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে।

জানা গেছে, ছাত্রদের দাবি মোতাবেক খুনীদের সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করতে প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছে সরকার। সিসিটিভি ফুটেজ ও জিজ্ঞাসাবাদে প্রাপ্ত তথ্যানুসারে শনাক্তকারী খুনীদের প্রত্যেকের সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করারও ঘোষণা এসেছে। আবরার হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের আজীবনের জন্য বহিষ্কারেরও নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

সূত্র বলছে, এই হত্যাকাণ্ডে দায়েরকৃত মামলা দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের অধীনে স্বল্পতম সময়ে নিষ্পত্তি করার জন্য সরকার ও বুয়েট প্রশাসন যথাযথ পদক্ষেপ নেয়ার বিষয়ে সর্বোচ্চ ইতিবাচক অবস্থানে রয়েছে।

প্রসঙ্গত, আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডে জড়িতরা যে দলেরই হোক না কেন, তাদের ছাড় দেয়া হবে না বলে স্পষ্ট ঘোষণা দিয়েছেন সরকার সংশ্লিষ্টরা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজে তা পর্যবেক্ষণ করছেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, বুয়েটের মেধাবী শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা কোনোভাবেই বরদাশত করা হবে না। এর সঙ্গে জড়িতদের সর্বোচ্চ শাস্তি পেতেই হবে। কাউকে একচুলও ছাড় দেয়া হবে না। শুধু প্রধানমন্ত্রী হিসেবেই নয়, আমি একজন মা হিসেবে এ হত্যাকাণ্ডের বিচার করব। ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের সর্বোচ্চ ব্যবস্থা নিতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে নির্দেশ দিয়েছি। ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের ধরা হয়েছে। আইনি প্রক্রিয়াও শুরু হয়েছে।

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –
এই বিভাগের আরো খবর