ব্রেকিং:
ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা রংপুরগামী ‘রংপুর এক্সপ্রেস’ ট্রেনের ইঞ্জিনসহ সাতটি বগি লাইনচ্যুত হয়ে আগুন, অন্তত ১০ জন আহত

বৃহস্পতিবার   ১৪ নভেম্বর ২০১৯   কার্তিক ৩০ ১৪২৬   ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

সর্বশেষ:
উন্নয়ন মেলা ২০১৯ এর শুভ উদ্বোধন করেছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
৭৫১

টসে হেরে ফিল্ডিংয়ে রংপুর, ব্যাটিং বিপর্যয়ে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স

প্রকাশিত: ২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯  

বিপিএলের গ্রুপ পর্বের ৪১তম ম্যাচে কুমিল্লার বিপক্ষে টসে হেরে ফিল্ডিংয়ে নামছে রংপুর রাইডার্স। চলতি আসরে এটিই গ্রুপ পর্বে এই দু'দলের শেষ ম্যাচ। ম্যাচের জয়ী দলের জন্য শীর্ষস্থান নিশ্চিতের সুযোগ থাকছে।

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) গ্রুপ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে শনিবার (০২ ফেব্রুয়ারি) মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে দুপুর ১-৩০ মিনিটে মুখোমুখি হয়েছে রংপুর রাইডার্স ও কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। 

প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ব্যাটিং বিপর্যয়ে পরেছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। এ রিপোর্ট করা পর্যন্ত কুমিল্লার সংগ্রহ ৭.১ ওভার শেষে ৫ উইকেট হারিয়ে ২৯ রান। 

শেষ চার আগে নিশ্চিত হয়ে যাওয়ায় এই ম্যাচটি এখন শীর্ষস্থান নিশ্চিতের ম্যাচে পরিণত হয়েছে। এখন পর্যন্ত ১১ ম্যাচে ১৬ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে আছে কুমিল্লা। ২ পয়েন্ট কম নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে রংপুর। 

যদিও ম্যাচটি আদতে আনুষ্ঠানিকতা রক্ষার। তবু শীর্ষ দুই দলের লড়াই বলেই বাড়তি উন্মাদনা। নিয়ন্ত্রিত বোলিং আর আগ্রাসী ব্যাটিং দুই দলেরই মূল বৈশিষ্ট্য। 

ব্যাটিংয়ে রংপুর অনেকটা এগিয়ে। প্রথম চার ব্যাটসম্যানই বিশ্বের অন্যতম বিধ্বংসী। সবমিলিয়ে চলতি আসরের সবচেয়ে শক্তিশালী ব্যাটিং লাইনআপ রংপুরেরই। দলের রাইলি রুশো ও অ্যালেক্স হেলস দুজনেই আছেন দুর্দান্ত ফর্মে। পেয়েছেন সেঞ্চুরিও। রুশো তো চলতি আসরের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক। এখন পর্যন্ত তার নামের পাশে যুক্ত হয়েছে ৫১৪ রান। তবে হেলস ইনজুরিতে পড়ে দেশে ফিরে যাওয়ায় কিছুটা শক্তি হারিয়েছে রংপুর।

আর ডি ভিলিয়ার্সের কথা না বললেও চলে। তার তুলনা শুধু তিনিই। এবারই প্রথম বিপিএলে খেলতে আসা সাবেক এই প্রোটিয়া অধিনায়ক এরইমধ্যে একটি সেঞ্চুরিও হাঁকিয়েছেন। আজকের ম্যাচটিই চলতি আসরে তার শেষ ম্যাচ হওয়ায় বিশেষ ইনিংস প্রত্যাশা করাই যায়।  

এখনো গেইল ঝড়ের অপেক্ষা ফুরোয় নি। তবে যেদিন তার ব্যাট কথা বলতে শুরু করবে সেদিন বোলারদের নাকের জল চোখের জল এক হয়ে যাবে। সেই দিনটা আজই হতে পারে। আর তা যদি হয়, প্রতিপক্ষের বোলারদের চোখে অন্ধকার দেখা ছাড়া গতি নেই।

বল হাতে রংপুরের অধিনায়ক মাশরাফি আছেন দারুণ ফর্মে। ১১ ম্যাচ খেলে ১৭ উইকেট নিয়েছেন টাইগারদের ওয়ানডে অধিনায়ক। সমান উইকেট আছে ফরহাদ রেজার ঝুলিতেও।

অন্যদিকে কুমিল্লার ব্যাটিংয়ে বড় ভরসা তামিম ইকবাল ও অধিনায়ক ইমরুল কায়েস। এখন পর্যন্ত চলতি আসরে ২৭১ রান করেছেন এই টাইগার ওপেনার। তরুণ শামসুর রহমানও ২০০ রান করে নজর কেড়েছেন। কুমিল্লার ব্যাটিংয়ের গভীরতা বাড়িয়েছেন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন। 

বল হাতেও দলের বড় ভরসার নাম অলরাউন্ডার সাইফউদ্দিন। সেই সঙ্গে অভিজ্ঞ শহীদ আফ্রিদি, তরুণ বোলার মেহেদি হাসান তো আছেনই। বোলিংয়ে কুমিল্লার আরেক ভরসা থিসারা পেরেরা। ব্যাট হাতে বিধ্বংসী ভূমিকা রাখতে সক্ষম এই লঙ্কান অলরাউন্ডার। 

রংপুর রাইডার্সের একাদশ
ক্রিস গেইল, এবি ডি ভিলিয়ার্স, রাইলি রুশো, মোহাম্মদ মিঠুন (উইকেটরক্ষক), নাহিদুল ইসলাম, ফরহাদ রেজা, মাশরাফি বিন মর্তুজা (অধিনায়ক), শহিদুল ইসলাম, রবি বোপারা, মেহেদি মারুফ, মিনহাজুল আবেদিন।

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের একাদশ
তামিম ইকবাল, আনামুল হক (উইকেটরক্ষক), শামসুর রহমান, ইমরুল কায়েস (অধিনায়ক), লিয়াম ডসন, থিসারা পেরেরা, ওয়াহাব রিয়াজ, জিয়াউর রহমান, আবু হায়দার রনি, ওয়াকার সালামখেইল, সঞ্জিত সাহা।

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –