ব্রেকিং:
ট্রেন দুর্ঘটনায় তূর্ণা নিশীথার চালক, সহকারী চালক ও পরিচালককে বরখাস্ত ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবা উপজেলায় আন্তঃনগর উদয়ন এক্সপ্রেসে তুর্ণা নীশিতার ধাক্কায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৬ জনে দাঁড়িয়েছে।

বুধবার   ১৩ নভেম্বর ২০১৯   কার্তিক ২৮ ১৪২৬   ১৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

সর্বশেষ:
ট্রেন দুর্ঘটনার ঘটনায় তদন্ত কমিটি গঠন, ২৪ ঘণ্টার মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দেয়ার নির্দেশ ঘূর্ণিঝড় বুলবুলে কৃষিতে ক্ষতি ২৬৩ কোটি টাকা ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহতদের পরিবার প্রতি ১ লাখ টাকা এবং আহতদের ১০ হাজার টাকা করে সাহায্যের ঘোষণা রেলপথ মন্ত্রীর ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনায় হতাহতের ঘটনায় গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী স্বেচ্ছাসেবকলীগ ঢাকা মহানগর উত্তরের সম্মেলন আজ রাষ্ট্রপতি নেপাল যাচ্ছেন আজ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠান আগামী ৮ ডিসেম্বর টি-টোয়েন্টি র‌্যাংকিংয়ে ৩৮তম স্থানে বাংলাদেশের মোহাম্মদ নাঈম
৬২

নীলফামারীতে বিলের পানিতে ডুবে দুই শিশুর মৃত্যু

প্রকাশিত: ২ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

বিলের পানিতে নেমে ডুবে প্রাণ হারিয়েছে দুই শিশু। রবিবার (১ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টার দিকে নীলফামারীর কিশোরীগঞ্জ উপজেলা বড়ভিটা ইউনিয়নের আতদরিয়া বিলে এই মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটে। মৃত দুই শিশু হলো ওই ইউনিয়নের উত্তর বড়ভিটা বানিয়াপাড়া গ্রামের অনাথ চন্দ্র রায়ের মেয়ে শ্যামলী রানী রায় (১০) ও একই পাড়ার কানু চন্দ্র রায়ের মেয়ে মনিষা রানী রায় (৯)। তারা দুজনে বান্ধবী ও বড় ভিটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রী।

বড় ভিটা ইউপি চেয়ারম্যান ফজলার রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, স্কুল বন্ধ থাকায় তারা দুই বান্ধবী ওই বিলে শাপলাফুল তুলতে গিয়েছিল। বিলের গভীর পানিতে ডুবে যায়।

এলাকার লোকজন বিষয়টি বুঝতে পেরে তাদের উদ্ধার করতে গেলে দেখে দুই শিশু বিলের শ্যাওলার ভিতর পেচিয়ে পানির নিচে পড়ে ছিল। তাদেরকে পাশ্ববর্তী জলঢাকা হাসপাতালে নেয়া হলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক শিশু দুইজনকে মৃত ঘোষনা করেন। এ ঘটনায় ওই গ্রামে শোকের ছায়া নেমে আসে। 

এদিকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ ও কিশোরীগঞ্জ থানার ওসি হারুন অর রশীদ। তারা জানান, ঘটনাটি মর্মান্তিক। শিশুর মরদেহ দুইটি তাদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়। 

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –
এই বিভাগের আরো খবর