ব্রেকিং:
দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আরো ২৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৫ হাজার ৭২৩ জনে। এছাড়া নতুন করে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে আরো ১ হাজার ৫৪৫ জনের দেহে। এখন পর্যন্ত দেশে মোট শনাক্ত হলো ৩ লাখ ৯৩ হাজার ১৩১ জন করোনা রোগী। দিনাজপুরে গত ২৪ ঘণ্টায় ১১ জন ব্যক্তি করোনা ভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ৩৫৫৭ জনে। বুধবার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দিনাজপুরের সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ আব্দুল কুদ্দুছ।
  • বৃহস্পতিবার   ২২ অক্টোবর ২০২০ ||

  • কার্তিক ৬ ১৪২৭

  • || ০৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

সর্বশেষ:
গ্রামীণ সড়ক রক্ষণাবেক্ষণসহ মজবুত করে তৈরির নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর রংপুরে তিন ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে সাবেকরাই ফের নির্বাচিত নির্বাচনে ব্যর্থতার জন্য বিএনপি নেতাদের পদত্যাগ করা উচিত: কাদের হাতীবান্ধার দুই ইউপিতে নৌকা নিয়ে `বাবার চেয়ারে` বসলেন ছেলে নেতা-কর্মীদের সঙ্গে নিয়মিত সাক্ষাৎ করেও খালেদার গৃহবন্দির অভিযোগ!

বখাটের পরিবারের হামলায় আহত গৃহবধুর মৃত্যু: বখাটে গ্রেফতার

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০  

এক বখাটে ছেলের পরিবারের সদস্যদের হামলায় আহত হয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আজ শনিবার(১৯ সেপ্টেম্বর/২০২০) ভোরে নীলফামারীর ডিমলা উপজেলা হাসপাতালে অবশেষে মৃত্যুর মুখে ঢলে পড়লেন গৃহবধু নুরজাহান বেগম(৪০)।

ওই গৃহবধু ডিমলা উপজেলার গয়াবাড়ি ইউনিয়নের সুটিবাড়ি গ্রামের আমিন মিয়ার স্ত্রী। আজ শনিবার দুপুরে লাশের ময়না শেষে সন্ধ্যায় ওই গৃহবধুকে দাফন করে স্বজনরা।

পুলিশ সুত্রে জানা যায়, ওই গৃহবধুর স্কুল পড়ুয়া মেয়ে বাড়ির টিউবয়েলে গোসল করতে গেলে সেখানে প্রতিবেশি আব্দুল খালেকের বখাটে ছেলে সজিব(১৮) মোবাইলে ভিডিও করে। মেয়েটি দেখে ফেলে চিকিৎকার দিলে ওই বখাটে ঢিল ছুঁড়ে মারে। এ ঘটনায় স্কুল ছাত্রীটির মা নুরজাহান প্রতিবাদ করলে আব্দুল খালেকের স্ত্রী খদেজা বেগমসহ পরিবারের লোকজন লাঠি দিয়ে হামলা চালিয়ে গৃহবধুকে বেধরক মারপিট করে। এলাকাবাসী ছুটে এসে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করায়। দীঘ ১৪ দিন চিকিৎসাধীন থাকার পর আজ শনিবার ভোরে ডিমলা হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়।

নুরজাহানের ছেলে শাহ আলম বাদী হয়ে ডিমলা থানায় ১০জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করলে পুলিশ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে বখাটে সজিবকে গ্রেফতার করলেও অন্যান্যরা পালিয়ে যায়।


ডিমলা থানার ওসি সিরাজুল ইসলাম বলেন মামলার এজাহার নামীয় অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা করা হচ্ছে।