• বুধবার   ১০ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ২৬ ১৪২৯

  • || ১১ মুহররম ১৪৪৪

সর্বশেষ:
কম খরচে মাছের ভাসমান খাদ্য তৈরির যন্ত্র উদ্ভাবন শেকৃবি গবেষকের জনবিচ্ছিন্নদের ৭ দলীয় জোট রাজনীতিতে গুরুত্বহীন: তথ্যমন্ত্রী রংপুরে বাল্যবিয়ে ও নারী নির্যাতন বন্ধে শপথ নিলেন ২৫০ রিকশাচালক দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আবারো মনোনয়ন বাণিজ্যে তারেক বঙ্গবন্ধুকে সম্মানসূচক মরণোত্তর ডি-লিট ডিগ্রি দেবে ঢাবি

‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানবিক সহায়তার হাত বাড়িয়েছেন’

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ২৪ জুন ২০২২  

সিলেটে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের উদ্দেশ্যে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, আপনাদের কোনো ভয় নেই। আমরা সবাই আপনাদের পাশে আছি। আমাদের মানবিক নেত্রী বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আপনাদের মাঝে এসে মানবিক সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। 

তিনি বলেন, আমি তার দেখানো পথেই আমার ব্যক্তিগত তহবিল থেকে এ মানবিক সাহায্য পৌঁছে দিতে এসেছি। এ বিষয়ে আমার সহধর্মিণী খাদেজা রাসেল আমাকে বেশি অনুপ্রাণিত করেছেন।

শুক্রবার সিলেট জেলা স্টেডিয়ামে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের হাতে মানবিক সহায়তা তুলে দেওয়ার সময় তিনি এসব কথা বলেন।

এ সময় মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেন, সিলেটে পাহাড়ি ঢল ও অতিরিক্ত বৃষ্টিপাতে ভয়াবহ বন্যার সৃষ্টি হয়েছে। এই প্রাকৃতিক বিপর্যয় নিয়েও অপরাজনীতি করে চলেছে বিএনপি। তাই এই অপরাজনীতি বন্ধ করতে বিএনপির প্রতি আহ্বান জানান তিনি।

প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, বিএনপির কাজই অপরাজনীতি করা। তারা সহজ ও সোজা পথে হাঁটে না। তারা পদ্মাসেতুর মতো দেশের এতবড় প্রকল্প নিয়েও ষড়যন্ত্রের চেষ্টা করেছিল। তবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সামনে তাদের সব কুচেষ্টা ব্যর্থ হয়েছে। এবার তারা বন্যার মতো মানবিক বিপর্যয় নিয়েও অপরাজনীতি শুরু করেছে।

বিএনপিকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, আপনারা সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়ান। তাদের দুঃখ ও কষ্ট বুঝেন। এত বড় মানবিক বিপর্যয় নিয়ে অপরাজনীতি করবেন না। এ সময় প্রধানমন্ত্রী, তার পরিবার, নিজের পরিবার এবং দেশবাসীর জন্য দোয়া চান যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী। 

সিলেট শহরের প্রায় ১ হাজর মানুষের হাতে মানবিক সহায়তা তুলে দেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী। এছাড়া দক্ষিণ সুরমা ও বালাগঞ্জে আরো ২ হাজার মানুষের কাছে সহায়তা পৌঁছে দেওয়া হবে বলেও জানান প্রতিমন্ত্রী।

ত্রাণ বিতরণের সময় সিলেটের  জেলা প্রশাসক (ডিসি) মজিবুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শফিকুর রহমান চৌধুরী, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নাসির উদ্দিন খান, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মাহিউদ্দিন সেলিমসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।