• শুক্রবার ২১ জুন ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ৭ ১৪৩১

  • || ১৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

স্বামীরটা নিতেই মেয়েরা স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করে: সুবহা

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১৫ জানুয়ারি ২০২৩  

ঢাকাই সিনেমার নবাগত চিত্রনায়িকা হুমায়রা সুবহার নতুন প্রেমের গুঞ্জনে উত্তাল সোশ্যাল মিডিয়া। তবে নায়িকার দাবি, তিনি এখন পুরোপুরি সিঙ্গেল। পছন্দের জীবনসঙ্গী খুঁজে পেলে সবাইকে জানিয়েই বিয়ের পিঁড়িতে বসবেন।

সুবহা বলেন, প্রেমটা আমার কাছে খুবই সুইট একটা জিনিস। প্রেম শুধু বয়ফ্রেন্ডের সঙ্গেই করতে হবে এমনটা নয়। প্রেম সবার সঙ্গেই হয়। গাছের সঙ্গে হয়, পাখির সঙ্গে হয়, ফুলের সঙ্গেও হয়। একসঙ্গে কখনোই ১০০ প্রেম করি না। আমি এখন কোনো প্রেমের সম্পর্কে নেই। আপাতত সিলেকশন করছি। বিয়ের আগে একটা স্বয়ম্বর সভা করবো।

কেমন জীবনসঙ্গী খুঁজছেন- প্রশ্নের জবাবে নায়িকা জানান, আমি চাই, যে আমার লাইফে আসবে সে আমাকে মানসিকভাবে সাপোর্ট করুক। আমার কাজকে সম্মান করুক। অবশ্যই তাকে ভালো মনের মানুষ হতে হবে। বিয়ের ব্যপারটা আল্লাহর ওপর নির্ভর করে। আমার কপালে কে আছে, কার সঙ্গে সারাজীবন কাটিয়ে দিব, এটা আমি নিজেও জানিনা। আমি চাই না, এবার আমার লাইফে যে আসবে তাকে মানুষ ছোট করুক বা তার সঙ্গে আমার সংসারে ঝামেলা হোক।

তিনি যোগ করেন, খুব খুশি হতাম, যদি এই ভ্যালেন্টাইনের আগে আমার লাইফপার্টনার খুঁজে পেতাম। আমার ভাগ্য খারাপ, গত দুই-তিন বছর ধরেই ভ্যালেন্টাইনের আগে আমি সিঙ্গেল থাকি। ভ্যালেন্টাইনে কারো সঙ্গে ডেটও করতে পারি না। পরিবার ও বন্ধুদের নিয়েই চিল করি।

সুবহা আরো বলেন, আমার ছোট ছোট আশাগুলো যদি আমার স্বামী পূরণ করতে না পারে তাহলে স্বামীর কি দরকার! আমি তো কর্মজীবী নারী। আমি আমার টাকায় চলতেই পারব। তবে স্বামীরটা নিয়ে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করবে না এমন কোন নারী আছে? স্বামী যদি একটা মাটির গয়নাও এনে দেয়, সেটাই মেয়েরা খুব খুশি মনে পরে। কারণ স্বামীরটা নিতেই মেয়েরা স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করে। আমার স্বামীর যত টাকাই থাকুক, যতটুকু জিনিসই থাকুক- আমাকে সে হ্যাপী রাখবে, এটাই চাওয়া।