• শনিবার   ২৮ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৩ ১৪২৯

  • || ২৫ শাওয়াল ১৪৪৩

সর্বশেষ:
খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করে অর্থনীতিকে গতিশীল রেখেছে সরকার- প্রধানমন্ত্রী মরণোত্তর দ্যাগ হ্যামারশোল্ড মেডেল পেলেন ২ বাংলাদেশি নীলফামারীতে দুস্থ ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে বাইসাইকেল বিতরণ লিচুকে ঘিরে দিনাজপুরে দৈনিক ১০ কোটি টাকার লেনদেন ‘গুপ্তধন পেতে জিনের বাদশাহকে ৮ লাখ টাকা দিয়েছি’

কিশোরগঞ্জে নিহত বিজিবি সদস্যের মরদেহ হস্তান্তর

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ২৯ নভেম্বর ২০২১  

নীলফামারীর কিশোরগঞ্জে নির্বাচনী সহিংসতায় নিহত ৫৬ বিজিবির নায়েক সুবেদার রুবেল মন্ডলের লাশের ময়নাতদন্ত সোমবার দুপুরে নীলফামারী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে সম্পন্ন হয়েছে। পরে তার মৃতদেহ বিজিবির কাছে হস্তান্তর করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নীলফামারী জেনারেল হাসপাতালের সহকারী পরিচালক মেজবাহুর হাসান চৌধুরী।

তিনি জানান, দুপুর ১২টার দিকে বিজিবি সদস্যের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে। পরে কর্তৃপক্ষের কাছে মৃতদেহ হস্তান্তর করা হয়। তার বাড়ি গাইবান্ধা জেলার সুন্দরগঞ্জ উপজেলায় বলে নিশ্চিত করেছেন তিনি।

এদিকে, ঘটনাস্থল উপজেলার গাড়াগ্রাম ইউনিয়নের পশ্চিম দলিরাম মাঝাপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে গিয়ে দেখা গেছে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। জনশূন্য পুরো এলাকা। কয়েকটি বাড়ির কয়েকজন নারী ছাড়া আর চোখে পড়েনি কাউকে।

কিশোরগঞ্জ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল আওয়াল বলেন, ভোট গণনার সময় দুই প্রার্থীর সমর্থকরা সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। পুলিশ ও বিজিবির সদস্যরা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নামেন। 

ওসি জানান, গাড়াগ্রামে লাঙ্গল প্রতীকে চেয়ারম্যান পদের প্রার্থী ছিলেন জাতীয় পার্টির মারুফ হাসান অন্তিক। এ কেন্দ্রেই আনারস প্রতীক নিয়ে লড়ছিলেন জনাব আলী। ইউনিয়নের পশ্চিম দলিরাম মাঝাপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে বিকেলে যখন ভোট গণনা শুরু হয় তখন জানা যায় জনাব আলী ৫৪ ভোটে এগিয়ে আছেন।

তখনই অন্তিকের সমর্থকরা জনাব আলীর সমর্থকদের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়ান। এ সময় একদল লোক প্রিজাইডিং ও পোলিং অফিসার এবং আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের অবরুদ্ধ করে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে কেন্দ্রে হামলা চালান। রাত ৯টা পর্যন্ত দফায় দফায় এ হামলায় মো. রুবেল নামে বিজিবি সদস্য ঘটনাস্থলে নিহত হন।

ওই কেন্দ্রের প্রিজাইডিং অফিসার ললিত চন্দ রায় বলেন, ভোট গণনার পর জনাব আলীকে বিজয়ী প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করা হলে অন্তিকের সমর্থকরা নির্বাচনী কর্মকর্তাদের ওই কেন্দ্রে আটকে রাখেন। এ সময় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে সচেষ্ট হলে তাদের সঙ্গে মারুফ হোসেন অন্তিকের সমর্থকদের সংঘর্ষ বাধে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিতে পুলিশ কয়েক রাউন্ড গুলি ছুঁড়েছে।

পরাজিত প্রার্থীর চাচি ইয়ামিন বেগম জানান, আমরা হেরে গেছি। তারপর কী হয়েছে আমাদের জানা নেই। রাত ২টার দিকে আমাদের বাড়িতে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করে কিছু ব্যক্তি। আমার পরিবার থেকে দুজনকে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। কে বা কারা নিয়ে গেছে তা আমরা জানি না।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম বলেন, নিহত বিজিবি সদস্যের ঘাড়ে লাঠি ও রড দিয়ে আঘাত করা হয়েছে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে গাড়িতে করে হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যান। এ ঘটনায় আহত ছয়জনের অবস্থা গুরুতর। তারা চিকিৎসাধীন।

জেলার রিটার্নিং অফিসার জাহাঙ্গীর আলম বলেন, গাড়াগ্রামে কেন্দ্র দখল নিয়ে মারুফ হোসাইন ও জনাব আলীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করতে গিয়ে বিজিবি সদস্য রুবেল মন্ডল নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতারে অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।

এদিকে দুপুর আড়াইটার দিকে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে চার সদস্যের একটি টিম। এতে বিজিবি রংপুর রিজিওনাল কমান্ডার লে কর্ণেল মাহবুবুর রহমান খান, রংপুর রেঞ্জের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ মহাপরিদর্শক ওয়ালিদ হোসেন ও নীলফামারীর অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মির্জা মুরাদ হাসান বেগ ছিলেন।

এ সময় কোনো কথা না বললেও যুগ্ম সচিব মিজানুর রহমান বলেন, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হলো। সবার সঙ্গে কথা বলতে হবে। এ মুহূর্তে কিছু বলা যাচ্ছে না।

এ ব্যাপারে আনুষ্ঠানিকভাবে কোনো দফতর তথ্য না দেওয়ায় বিজিবি সদস্য নিহতের বিষয়ে মামলা, গ্রেফতার কিংবা প্রশাসনিক কোনো তথ্য জানা সম্ভব হয়নি কারো কাছ থেকে।