• মঙ্গলবার   ০৬ ডিসেম্বর ২০২২ ||

  • অগ্রাহায়ণ ২২ ১৪২৯

  • || ১১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

সর্বশেষ:
অসম্ভবকে সম্ভব করাই বাঙালির চরিত্র: প্রধানমন্ত্রী কক্সবাজারে ২৮ প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী বিএনপির সমাবেশ ঘিরে যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবিলায় প্রস্তুত র‍্যাব গণতন্ত্রকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিতে সরকার কাজ করছে: ওবায়দুল কাদের হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীর কবরে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা

কিশোরগঞ্জে কালবৈশাখী ঝড়ে লন্ডভন্ড গ্রাম- ফসলের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১৫ মে ২০২২  

নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলায় গতকাল শনিবার(১৪ মে) রাতে চাঁদখানা ও বাহাগিলি ইউনিয়নের উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া কালবৈশাখীর তান্ডবে লন্ডভন্ড হয়েছে আধা পাকাসহ কাচা ঘরবাড়ি ভেঙ্গে পরেছে শত শত গাছপালা। লেপটে গেছে কৃষকের মাঠের ধান, ভূট্টা, কাচামরিচ ও পাট ক্ষেত। ঝড়ে উড়ে গেছে সদ্য নির্মিত প্রধানমন্ত্রীর উপহারের ঘরের চাল।

জানা গেছে, রাত ১টার দিকে চাঁদখানা ইউনিয়নের উত্তর চাঁদখানা সরঞ্জবাড়ী ও বাহাগিলী ইউনিয়নের উত্তর দুরাকুটি কারবালার ডাঙ্গার উপর দিয়ে বয়ে যায় কালবৈশাখী ঝড়। ঝড়ের তান্ডবে লন্ডভন্ড হয়েছে আধাপাকাসহ কাচাঘর বাড়ি। এসময় নগরবন গ্রামের আমীর আলীর আধাপাকা ঘরের টিনসহ প্রায় শতাধিক কাচা বাড়ির ঘরের চাল উড়ে যায়।
এছাড়াও বাহাগিলী ইউনিয়নের উত্তর দুরাকুটি কাবরালার ডাঙ্গায় আশ্রয়ন প্রকল্পের একটি ঘরের টিনের চাল উরে যায়। এসময় দুমরে মুচরে গেছে আরোও কয়েকটি ঘরের চাল।

বাহাগিলি ইউনিয়নের কারবালার ডাঙ্গার প্রধানমন্ত্রীর ঘর পাওয়া রুবেল হোসেন(৫০) এবং আমেনা বেগম বলেন(৪০), রাতের বৃষ্টিপাত ও ঝরের সময় আমাদের ঘরের টিনের চালাগুলো উড়ে গিয়ে অন্য জায়গায় পরে গিয়েছে। এছাড়াও ৭ থেকে ৮ টি ঘরের বিভিন্ন জায়গায় বড় বড় ফাটল দেখা দিয়েছে।  

এদিকে উপজেলার উত্তর চাঁদখানা নগরবন যাওয়ার পাঁকা রাস্তাটির দুধারে থাকা বড় কয়েকটি গাছ উপরে পরে যোগাযোগ ব্যবস্থা বন্ধ রয়েছে। এলাকাবাসীর অভিযোগ পাঁকা সড়কটি সকাল থেকে বন্ধ থাকলে ভেঙ্গে পড়া গাছ অপসারনের জন্য কোন ব্যবস্থা নেইনি কর্তৃপক্ষ।

এ ব্যাপারে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা হাবিবুর রহমান বলেন, ফসলের ক্ষয়ক্ষতি নির্ধারনের জন্য উপ সহকারী কৃষি কর্মকর্তাগন মাঠ পর্যায়ে রয়েছে।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকতা আবুল হাসনাত সরকার বলেন, সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানকে ক্ষতিগ্রস্থ ব্যাক্তির নামের তালিকা তৈরী করতে বলা হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার নুর-ই আলম সিদ্দিকীর সাথে কথা বললে তিনি বলেন, ঝড় বৃষ্টিতে প্রথম পর্যায়ের নির্মিত কয়েকটি ঘর ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। ঘরগুলো খুব তাড়াতাড়ি মেরামতের ব্যাবস্থা করা হবে।