• শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০২৪ ||

  • শ্রাবণ ৩ ১৪৩১

  • || ১১ মুহররম ১৪৪৬

সর্বশেষ:
সর্বোচ্চ আদালতের রায়ই আইন হিসেবে গণ্য হবে: জনপ্রশাসনমন্ত্রী। ২৫ জুলাই পর্যন্ত এইচএসসির সব পরীক্ষা স্থগিত।

শিক্ষাখাতে বাজেট বৃদ্ধি প্রয়োজন:ডা. দিপু মনি  

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ৪ জুন ২০২৩  

দেশের শিক্ষাখাতে বাজেট বৃদ্ধি প্রয়োজন বলে মনে করেন সরকারের শিক্ষামন্ত্রী ডা. দিপু মনি। তবে এর পাশাপাশি সুষ্ঠু শিক্ষানীতি ও আদর্শ শিক্ষকের কথাও তিনি বলেন।

আজ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) সমাজবিজ্ঞান অনুষদ মিলনায়তনে আয়োজিত হয় ‘বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও বাংলাদেশ’ শীর্ষক সেমিনার। এতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে শিক্ষাক্ষেত্রে বাজেটের বিষয়ে এসব মতামত ব্যক্ত করেন তিনি।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, শিক্ষাক্ষেত্রে বাজেট বাড়ানো অবশ্যই দরকার। কিন্তু শুধু বাজেট বাড়ানোই যথেষ্ঠ নয়। সেই বাজেটকে ব্যবহার করতে পারার জন্য দরকার সুষ্ঠু শিক্ষানীতি ও আদর্শ শিক্ষক। শিক্ষাক্ষেত্রে বাজেট বৃদ্ধির জন্য শুধু শিক্ষা মন্ত্রণালয়ই যথেষ্ট নয়। এক্ষেত্রে যাবতীয় সব বিষয় হিসেব করলে আমরা দেখি মোট ২৯টি মন্ত্রণালয় এর পেছনে কাজ করে।

ডা. দীপু মনি আরও বলেন, এখন আমাদের শিখতে শেখার প্রয়োজন। আমরা যখন জানতে পারব যে কীভাবে শিখতে হয় তাহলে আমরা নিজেদেরকে আরো বহুদূর এগিয়ে নিতে পারব। এজন্যই আমরা শিক্ষাক্রমে পরিবর্তন নিয়ে আসছি।

এদিন দুপুর বারোটায় জাতীয় সংগীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে শুরু হয় সেমিনারের আনুষ্ঠানিকতা। অনুষ্ঠানে অধ্যাপক ড. সুকান্ত ভট্টাচার্য ও ড. নাজনীন নাহার ইসলামের সঞ্চালনায় ও বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. শিরীণ আখতারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয় এ সেমিনার। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন চবি প্রক্টর ড. নুরুল আজীম শিকদার।

এতে মুখ্য আলোচক হিসেবে উপস্থিত থেকে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন চবি বঙ্গবন্ধু চেয়ার অধ্যাপক ড. মুনতাসীর মামুন। এতে আরও উপস্থিত ছিলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক বেনু কুমার দে, কলা ও মানববিদ্যা অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ মাহবুবুল হ ও শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. মুস্তাফিজুর রহমান সিদ্দিকী।

এদিন চবি মেরিন সায়েন্সেস এন্ড ফিশারিজ অনুষদটির উদ্বোধন করেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মণি। যা একাডেমিক ক্ষেত্রে দেশের প্রথম অত্যাধুনিক সমুদ্র গবেষণা কেন্দ্র।

সম্পূর্ণ অত্যাধুনিক এ অনুষদে ১ টি ইন্সটিটিউট ও ২ টি ডিপার্টমেন্টের থাকবে মোট ৫৬ টি কক্ষ সমৃদ্ধ ৫ তলা বিশিষ্ট একাডেমিক ভবন। ৫ তলা বিশিষ্ঠ টিচার্স ব্লকে আছে ৩৫ টি কক্ষ। আরও আছে মেরিন একুরিয়াম ভবন। গবেষণার সুবিধার্থে সামুদ্রিক নানা পর্বের নানা গোত্রের প্রাণী থাকবে এ একুরিয়ামে। একুরিয়ামের পাশাপাশি একটি হ্যাচারিও রয়েছে এই অনুষদের অধীনে।