• শুক্রবার ১২ জুলাই ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ২৮ ১৪৩১

  • || ০৪ মুহররম ১৪৪৬

ডিমলায় বুড়িতিস্তা নদীর বাঁধ ভেঙে প্রায় ১০টি গ্রাম প্লাবিত

– নীলফামারি বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ২০ জুন ২০২৪  

ভারী বর্ষণ এবং উজানের ঢলে নীলফামারীর ডিমলা উপজেলার বুড়িতিস্তা নদীর বাঁধ ভেঙে প্রায় ১০টি গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। এতে শতাধিক পরিবার পানিবন্দি হয়ে পড়েছে।

স্থানীয়রা জানান, বৃহস্পতিবার ভোররাতে উপজেলার সুন্দর খাতা নামক স্থানে বুড়িতিস্তা নদীর মূল বাঁধের প্রায় ৬০ মিটার অংশ ভেঙে দ্রুত আশপাশের ১০টি গ্রামে পানি ঢুকে পড়েছে। এতে পানিতে তলিয়ে গেছে বেশ কিছু জমির ফসল ও আমন ধানের বীজতলা। 

সুন্দর খাতা গ্রামের বাসিন্দা হবিবর রহমান জানান, ষাটের দশকের বাঁধ এখনও মজবুত থাকার কথা নয়। এর আগে বাঁধটি ভেঙে প্রায় ২০ বছর অনাবাদি ছিল হাজার একর জমি। অথচ টেকসই বেড়িবাঁধ নির্মাণের উদ্যোগ নেই কর্তৃপক্ষের। ওই গ্রামের অন্তত ৫০ জন কৃষকের আমন ধানের বীজতলা পানির নিচে তলিয়ে গেছে।

একই এলাকার বাসিন্দা আব্দুল আজিজ বলেন, প্রবল বর্ষণ ও উজানের ঢল নেমে আসায় বাধটি ভেঙে যায়। ভেঙে যাওয়া  প্রবলবেগে পানি ঢুকছে। বাড়িঘরে পানি উঠে যাওয়ায় আমরা আমাদের কাপড়-চোপড় ও ঘরে থাকা মালপত্র খাটের উপর রেখেছি। রাতে যদি বৃষ্টি হয় তাহলে আর বাড়িতে থাকা যাবে না। আমরা পরিবার নিয়ে বিপদে আছি।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সেকেন্দার আলী বলেন, বাঁধ ভেঙে যাওয়ায় ওই এলাকার অন্তত এক হাজার বিঘা আবাদি জমি সাময়িক পতিত হয়ে পড়বে। বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের সার্বিক সহযোগিতা দেওয়া হবে বলে জানান তিনি। 

নীলফামারী পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী আতিকুর রহমান বলেন, বাঁধ ভেঙে যাওয়ার বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। তবে বাঁধটি অনেক পুরোনো হওয়ার এটি আমাদের আওতায় কি না এ ব্যাপারে সংশয় আছে। কাগজপত্র দেখে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে।